ভার্চুয়াল রিয়েলিটি : তৈরি করছে ব্যবসায়ী, উদোক্তা ও ক্রেতার মধ্যে নতুন বন্ধন।

997

ভার্চুয়াল রিয়েলিটি প্রযুক্তির এক অদ্ভূত আবিষ্কার। যা দেয় এক অভাবনীয় অভিজ্ঞতা।প্রকৃতপক্ষে  বাস্তব নয়, কিন্তু বাস্তবের চেতনা উদ্রেককারী বিজ্ঞান নির্ভর কল্পনাকে ভার্চুয়াল রিয়েলিটি বলে ত্রিমাত্রিক  ইমেজ তৈরির মাধ্যমে অতি অসম্ভব  কাজও করা সম্ভব হয়। কল্পনার পাখায় ভর করে ইচ্ছে করলেই করে ফেলা  যায় যা খুশি তাই। একদম বাস্তবের মতোই মনে হয় সব কিছু ।

প্রযুক্তির উন্নয়নের সাথে সাথে ভার্চুয়াল রিয়েলিটি আজ ক্রমেই সহজলভ্য হয়ে আসছে। দৈনন্দিন জীবনে, বিনোদনের ক্ষেত্রে, বিভিন্ন প্রশিক্ষন দেয়াতে এবং ব্যবসা বাণিজ্যেও ভার্চুয়াল  রিয়েলিটি গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখছে।

বর্তমানে মার্কেটিং এর ক্ষেত্রে ভার্চুয়াল রিয়েলিটি বেশ গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখছে। তৈরি করছে ব্যবসায়ী, উদোক্তা ও ক্রেতার মধ্যে নতুন বন্ধন। প্রতিযোগিতার এই বাজারে কোম্পানিগুলো সাধারনত চায় তাদের ক্রেতাকে সর্বোচ্চ জিনিসটি দিতে। আর সেজন্য তাদের পণ্যকে আকর্ষনীয় করে উপস্থাপন করে তুলতে হয় ক্রেতাদের কাছে। ভার্চুয়াল  রিয়েলিটি সেক্ষেত্রে অভাবনীয় ভূমিকা পালন করছে।

বিভিন্ন শপিং মলে ভার্চুয়াল  রিয়েলিটি হেডসেট ব্যবহার করে তাদের পণ্যদ্রব্য বিক্রি করছে । তাছাড়া বিভিন্ন ফ্যাশন হাউজ তাদের লেটেস্ট কালেকশন গুলোকে ভার্চুয়াল  রিয়েলিটি ব্যবহার করে ক্রেতাদের নিকট উপস্থাপন করে। এস্টেট এজেন্টরা আজকাল ভার্চুয়াল রিয়েলিটি ব্যবহার করে ক্রেতাদের নিকট জমি বিক্রয় করে।

প্রযুক্তি নির্ভর  এ যুগ দিন দিন উন্নত থেকে উন্নততর হচ্ছে এবং আবিষ্কৃত হচ্ছে নতুন নতুন প্রযুক্তি। সেই সাথে সহজলভ্য হচ্ছে উন্নততর প্রযুক্তিগুলো। সেদিন আর খুব বেশি দূরে নেই,যখন মার্কেটিং হয়ে পড়বে  ভার্চুয়াল  রিয়েলিটি নির্ভর। এ পদ্ধতি ক্রেতাদের নিকট অধিক আকর্ষনীয় এবং তাদের মনে ইতিবাচক ধারনারও জন্ম দেয়।  তাছাড়া নানান ধরনের প্রোডাক্ট টেস্টিং  এও ভার্চুয়াল  রিয়েলিটি গুরুত্বপূর্ণ  ভূমিকা রাখে। পণ্য বিক্রিতে সময় কম ব্যয় হয় এবং বিক্রির হার বেড়ে যায়।